করোনা ভাইরাস

চীনে প্রাণঘাতী করোনা ভাইরাসের মোট মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৯৬ জনে। আজ রবিবার দেশটির স্বাস্থ্য কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, ভাইরাসটিতে মোট আক্রান্ত হয়েছে ১২ হাজারেরও বেশি মানুষ। চীনের রাষ্ট্রীয় সম্প্রচার মাধ্যমের বরাত দিয়ে এই তথ্য জানিয়েছে ব্রিটিশ বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

চীনে ৩১টি প্রদেশের সবগুলো এবং বিশ্বের অন্তত ১৮টি দেশে করোনা ভাইরাস আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হওয়ায় বিশ্বজুড়ে স্বাস্থ্যগত জরুরি অবস্থা ঘোষণা করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বা ডব্লিউএইচও। ভাইরাস সংক্রমণের কারণে চীন ভ্রমণের ওপর কড়াকড়ি আরোপ করেছে বিশ্বের বেশ কিছু দেশ। চীনের হুবেই প্রদেশের উহান শহর থেকে এই ভাইরাসটি ছড়িয়ে পড়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

হুবেই প্রদেশে নতুন করে ৩২ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। উহান শহরে এখন পর্যন্ত মোট প্রাণ হারিয়েছেন ২২৪ জন। নতুন করে এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ১৯২২ জন। এই প্রদেশেই মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৯০৭৫ জন।

চীনা নাগরিকদের অভিযোগ করোনা ভাইরাস ঠেকাতে কর্তৃপক্ষের নেওয়া ব্যবস্থা যথেষ্ট নয়। এক্ষেত্রে কর্তৃপক্ষের ধীর গতির কথা স্বীকার করেছেন চীনা কমিউনিস্ট পার্টির উহান পৌর শাখার সেক্রেটারি মা গুয়োকিয়াং। রাষ্ট্রীয় সম্প্রচার মাধ্যম সিসিটিভি-কে তিনি বলেন, ‘এই মুহূর্তে আমি অপরাধী, সাথে অনুতপ্ত বোধ করছি। আগেই যদি নিয়ন্ত্রণমূলক ব্যবস্থা কঠোর করা যেত তাহলে এখন ফলাফল অনেক ভালো হতো’। তবে চীনা প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংয়ের দাবি, এই সংকট কাটিয়ে ওঠার ক্ষমতা বেইজিংয়ের কাছে আছে।

– নিউজ ডেস্ক / খলিফা নিউজ